টঙ্গীতে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে সন্ত্রাসী হামালায় নিহত দুই।

নিজস্ব প্রতিবেদক,

টঙ্গীর দক্ষিণ দত্তপাড়া এলাকায় জহির মার্কেট আব্বাসের পুকুরপাড় বায়তুল রহমান জামে মসজিদের সাধারণ সম্পাদক ও ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগের কার্যকরি সদস্য মোবারক হোসেন মঞ্জু উপর পূর্ব শত্রুতার জের ধরে গতকাল (২৬জুলাই) রোববার রাতে তার বাড়ির সামনে মানিক (৪৫) সুজন (২৮), সুলতান (৬৫), মিজান (৪৫), নাফি (১৯), তাকিব (১৫) সহ অজ্ঞাত নামা ৫/৬জনের একটি সন্ত্রাসী বাহিনী পূর্ব পরিকল্পিতভাবে মোবারক হোসেন মঞ্জু উপর অতর্কিত হামলা চালায়।

উক্ত আসামীরা দীর্ঘদিন যাবত তার ও তার পরিবারের সহিত নানা রকমের ক্ষতিসাধনের পায়তারা করে আসছে। সে সময় সন্ত্রাসীরা মোবারক হোসেন মঞ্জু বাড়ির সামনে তাকে গতিরোধ করে তাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকলে তিনি সেই কারণ জানতে চাইলে উক্ত আসামীরা ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে এলোপাথারী মারপিট করে শরীরের বিভিন্ন স্থানে নিলাফুলা জখম করে। এ সময় ৫নং আসামী নাফি (১৯) তার হাতে থাকা হকিস্টিক দ্বারা হত্যার উদ্দেশ্যে তার মাথার উপর ও কপালে আঘাত করলে মাথা ফেটে নাক দিয়ে রক্ত প্রবাহিত হয়। ৩নং ও ৬নং আসামী মোবারক হোসেন মঞ্জুর পরিহিত প্যান্টের বাম পকেটে থাকা নগদ ৫০ হাজার টাকা জোরপূর্ব নিয়ে নেয়।

এ সময় তার ডাকচিৎকার শুনে বাসা থেকে তার স্ত্রী এগিয়ে এসে সন্ত্রাসীদের বাধা দেয়ার চেষ্টা করলে উক্ত আসামীগণ শাহিনা আক্তার (৩২) কে এলোপাথারীভাবে মারপিট করে শরীরে নিলাফুলা জখম করে এবং তার গলায় থাকা একটি দেড়ভরি ওজনের স্বর্ণের চেইন যার মূল্য আনুমানিক ৭৫ হাজার টাকা ১নং আসামী মানিক (৪৫) জোরপূর্বক গলা থেকে টান মেরে নিয়ে যায় এবং ২নং ও ৪নং আসামী তার মাথার চুল ধরিয়া টানা হেছড়া করে শ্লীলতাহানী করে।

তার ডাকচিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে উক্ত আসামীরা তাকে ও তার পরিবারের অন্য সদস্যদের খুন করবে বলে ভয়ভীতি দেখিয়ে দ্রুত পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে আশপাশের লোকজনের সহযোগিতায় তাদের উদ্ধার করে শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়। উক্ত আসামীগণ অত্যন্ত খারাপ প্রকৃতি লোক বিধায় তারা তার ও তার পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের যে কোন প্রকার প্রাণনাশসহ যে কোন ধরনের ক্ষতিসাধন করতে পারে। এ ঘটনায় এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গদের সাথে আলাপ আলোচনা করে টঙ্গী পূর্ব থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়।

মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে