পাবজি খেলতে না পারায়;দুঃখে যুবকের আত্মহত্যা।

চাকদহ থানার পূর্ব লালপুর এলাকার বাসিন্দা প্রীতম হালদার (‌২১)‌ কল্যাণী আইটিআইয়ের ছাত্র।

লাদাখে ভারত-চিন সীমান্তে বাড়ছে উত্তেজনা ৷ তার জেরে এবার বাতিল হয়েছে জনপ্রিয় গেম পাবজি ৷ এই চিনা মোবাইল গেমের নেশায় বুঁদ তরুণ সমাজের একাংশ ৷ হঠাৎ করেই গেমটি ভারতে নিষিদ্ধ হয়ে যাওয়ায় সমস্যায় পড়েছেন অনেকেই ৷ এই গেমের প্রতি নেশা এতটাই বেশি যে না খেলে এখন থাকতেই পারছেন না অনেকে ৷ পাবজি না খেলতে পারার দুঃখে এবার আত্মঘাতী হলেন এরাজ্যের এক তরুণ ৷

চাকদহ থানার পূর্ব লালপুর এলাকার বাসিন্দা প্রীতম হালদার (‌২১)‌ কল্যাণী আইটিআইয়ের ছাত্র। বেশিরভাগ ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ুয়ার মতো পাবজি খেলা তাঁর একপ্রকার নেশা ছিল বলে জানিয়েছেন প্রীতমের পরিবারের লোকজন। কিন্তু প্রিয় গেম নিষিদ্ধ হওয়ার পর থেকেই একেবারে ভেঙে পড়েছিলেন তিনি। এর পর শুক্রবার দুপুরে ঘরে সিলিং ফ্যানে ঝুলন্ত অবস্থায় প্রীতমের দেহ উদ্ধার করেন তাঁর মা। তাঁর চিৎকারে প্রতিবেশীরা ছুটে আসেন। পুলিশ এসে দেহ উদ্ধার করে নিয়ে যায়। পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, পাবজি খেলতে না পারার দুঃখে বেশ কয়েকদিন ধরেই মনমরা ছিলেন প্রীতম হালদার ৷ তাই আত্মহত্যার পিছনে পাবজি না খেলতে পারাকেই কারণ বলে মনে করা হচ্ছে৷

সূত্র নিউজ বাংলা ১৮

মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে